1. [email protected] : dalim :
  2. [email protected] : dalim1 :
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:৩৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম
কুড়িগ্রাম জেলা ও দায়রা জজকে যুক্তিতর্কের জাবেদা কপি প্রদানের নির্দেশ উচ্চ আদালতের ডিআইজি প্রিজনস পার্থ গোপাল বণিক কারাগারে ফখরুলসহ ৩৯ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানি ২১ নভেম্বর বিএনপি নেতা দুলুর বিরুদ্ধে দুর্নীতি মামলা চলবে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানি ৩১ অক্টোবর ৪৬০ কোটির মালিক কম্পিউটার অপারেটর নুরুল ফের রিমান্ডে ‘ইভ্যালির চেয়ারম্যান-এমডি প্রতারক চক্রের লিডার’ ভুল চিকিৎসায় পুরুষত্বহীনতার অভিযোগ:২৪ ঘন্টার মধ্যে ওসিকে মামলা নেয়ার নির্দেশ দিলেন ম্যাজিষ্ট্রেট ফেনীর দাদনার খাল দখল ও দুষণের অভিযোগ:স্বপ্রণোদিত হয়ে তদন্তের নির্দেশ দিলেন স্পেশাল ম্যাজিস্ট্রেট ফেনীর দাদনার খাল দখল ও দুষণের অভিযোগ:স্বপ্রণোদিত হয়ে তদন্তের নির্দেশ দিলেন স্পেশাল ম্যাজিস্ট্রেট

প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা : জাপানি হান্নান কারাগারে

  • প্রকাশিত হয়েছে : রবিবার, ৪ এপ্রিল, ২০২১
  • ২০০ বার পঠিত হয়েছে

ল লাইফ রিপোর্ট: রাজধানীর দক্ষিণখান থানার আইনুশবাগ (চাঁদনগর) এলাকার বাসিন্দা আব্দুর রশিদকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যার ঘটনায় জাপানি হান্নানকে দুই দফা রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। শনিবার (৩ এপ্রিল) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু সাঈদ শুনানি শেষে এই আদেশ দেন।

আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন (জিআর) শাখা এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। সূত্র জানায়, ‘এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দক্ষিণখান থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক আজহারুল ইসলাম জাপানি হান্নানকে দুইদিনের রিমান্ড শেষে আদালতে হাজির করেন। একই সঙ্গে হান্নানকে তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন। বিচারক আবেদন মঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।’

৩০ মার্চ ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট দেবব্রত বিশ্বাসের আদালত হান্নানের দুইদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এর আগে গত ২৫ মার্চ ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু সাঈদের আদালত জাপানি হান্নানকে ৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

গত ২৪ মার্চ বেলা সাড়ে ১১টার দিকে দক্ষিণখানের আইনুশবাগে চাঁদনগর এলাকায় আব্দুর রশিদ নামে এক যুবককে জাপানি হান্নান ও তার সহযোগীরা গুলি করে হত্যা করে। এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রশীদ ও হান্নানের মধ্যে দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলছিল। সর্বশেষ বালি রাখাকে কেন্দ্র করে আব্দুর রশীদের কাছে চাঁদা দাবি করে হান্নান। চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

আবদুর রশিদ ওই এলাকার আবদুল মালেকের ছেলে। তিনি রড-সিমেন্টের ব্যবসা করতেন। ঘটনার পর হান্নানসহ আটজনকে আটক করে পুলিশ। পরে ওইদিন রাতেই নিহত আব্দুর রশিদের বড় ভাই হারুন অর রশিদ বাদী হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেন। এজাহারে জাপানি হান্নানসহ ১৩ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা আরও পাঁচজনসহ মোট ১৮ জনকে আসামি করা হয়েছে।

অনুগ্রহ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

এ সম্পর্কীত আরো সংবাদ